এবার নিম্ন ও নিম্ন-মধ্যবিত্ত মহিলাদের জন্যে চলে এসেছে সরকারী উদ্যোগে তৈরি প্যাড ‘সাথী’

অরুনাংশু মৈত্র (টী.এন.আই ফালাকাটা) । টি.এন.আই সম্পাদনা শিলিগুড়ি

বাংলাডেস্ক, টী.এন.আই ফালাকাটা ৫ই মার্চ ২০১৮: একজন নারী বোঝেন আর আর এক নারীর ব্যাথা। এবার থেকে মুখ্যমন্ত্রীর উদ্যোগে দেওয়া হবে স্যানিটারি ন্যাপকিন “সাথী” (প্যাড)। মহিলারা মাত্র ছয় টাকা দিয়েই নিকটবর্তী স্বাস্থ্য কেন্দ্র ও আশা কর্মীদের কাছ থেকে কিনতে পড়বেন এই “সাথী” স্যানিটারি ন্যাপকিন। পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী শ্রীমতি মমতা ব্যানার্জির উদ্যোগে এবার থেকে রাজ্যের প্রতিটি স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ও আশা কর্মীদের কাছে পাওযা যাবে মহিলাদের ব্যাবহারের জন্য স্যানিটারি ন্যাপকিন “সাথী” (প্যাড)। এখনো গ্রামে গঞ্জে মা-বোনেদের প্যাড কেনার ক্ষমতা থাকে না এবং তারা কাপড় ব্যবহার করেন। যার ফলে তারা নানা শারীরিক সমস্যাতেও পড়েন ও লোক সমাজে লজ্জাতেও পড়তে হয়। এর জন্যই এই উদ্যোগ বলে জানা গেছে। বাজারে স্যানিটারি ন্যাপকিন কম পক্ষে ৩০ টাকা বা তারও বেশি দামে বিক্রি হয়। আর সাথী প্যাড মাত্র ৬ টাকায় পাওয়া যাবে যেকোনো নিকটবর্তী স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ও আশা কর্মীদের কাছে। এখন থেকে পশ্চিমবঙ্গের প্রত্যন্ত গ্রাম গঞ্জ এমনকি শহরেও মেয়েরা পেয়ে যাবে মাত্র ৬ টাকায় সাথী প্যাড। জলপাইগুড়ি ইন্সপায়ার নামক এক স্বেচ্ছা সেবী সংস্থার সভাপতি শ্রীমতী প্রিয়াঙ্কা চৌধুরী বলেন,  “এতো বড় একটি সাহসী পদক্ষেপ নেওয়ার জন্য মুখ্যমন্ত্রী শ্রীমতি মমতা ব্যানার্জি কে ধন্যবাদ জানাই। আমাদের মতো প্রতন্ত্র এলাকার মহিলারা উপকৃত হবেন। এর দাম বাজার মূল্যের তুলনায় অনেকটাই কম ও প্রতিটি স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ও আশা কর্মীদের কাছে পাওযা গেলে সহযেই সকলে কিনতে পড়বে। এর ফলে মহিলারা বিভিন্ন শারীরিক সমস্যা থেকেও রেহাই পাবে ও লোক সমাজে আর লজ্জায় পড়তে হবেনা। আসুন সকলে স্বাগত জানাই এই উদ্যোগকে”। মানুষের আশা যদি এই উদ্যোগ সরকার বিদ্যালয় গুলিতে সাইকেল, খাতা, ব্যাগ এর মতো “সাথী” (প্যাড) স্যানিটারি ন্যাপকিনও দেবার ব্যাবস্থা করে তবে গ্রামে গঞ্জের স্কুল ছাত্রীরা উপকৃত হবে।

Facebook Comments
Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!