শ্লীলতাহানি ও অপহরণের চেষ্টার অভিযোগে ধুপগুড়ীতে যুবক গ্রেপ্তার

সুপ্রিয় বসাক (টী.এন.আই  ধুপগুড়ি) । টি.এন.আই সম্পাদনা শিলিগুড়ি

বাংলাডেস্ক, টী.এন.আই ধুপগুড়ী ৪ঠা মার্চ ২০১৮: নবম শ্রেনীর ছাত্রীকে অত্যক্ত ও অপহরনের চেষ্টার অভিযোগ উঠল এক যুবকের বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে ধূপগুড়ি ব্লকের ময়নাতলি এলাকায়। ঘটনায় শনিবার রাতেই নাবালিকা ছাত্রীর মা ধুপগুড়ী থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। অভিযোগের ভিত্তিতে পুলিশ তদন্তে নেমে অভিযুক্ত মানব মজুমদারকে গ্রেফতার করেছে বলেও জানা গিয়েছে। স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, নাবালিকা মেয়েটি ধুপগুড়ী গার্লস হাইস্কুলের ছাত্রী। স্থানীয় ময়নাতলি থেকে টিউশন পড়তে প্রায়ই ধুপগুড়ীতে আসত সে। অভিযোগ আসা যাওয়ার পথে ওই ছাত্রীকে প্রতিদিনই কুরুচিকর মন্তব্য ছুড়ে দিত অভিযুক্ত যুবক। তবে সবকিছু চরমে উঠে শনিবার বিকেলে। বাড়ি থেকে বের হবার পরই মেয়েটিকে অপহরনের চেষ্টা করে ওই যুবক। ঘটনাটি চাক্ষুস দেখতে পেয়ে ছাত্রীর এক আত্মীয় রুখে দেয় এবং যুবককে আটক করে ধুপগুড়ী থানায় খবর দেয়। ঘটনাস্থলে পৌছে পুলিশ অভিযুক্ত আটক যুবককে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। রাতেই মেয়েটির মা থানায় অভিযোগ দায়ের করে। পুলিশও প্রাথমিক ভাবে আটক যুবককে জিজ্ঞাদাবাদ করবার পর গ্রেফতার করে। মেয়েটির মা অভিযোগ করে জানিয়েছেন, তার মেয়ে স্কুলে বা টিউশনে যাবার সময় প্রতিমূহুর্তেই বিরক্ত করত অভিযুক্ত যুবক। শনিবার সব সীমা অতিক্রম করে অপহরনের চেষ্টা করে। ঘটনায় অভিযুক্তের শাস্তি দাবী জানিয়ে পুলিশের কাছে অভিযোগ করা হয়েছে।” স্থানীয় বাসিন্দা রতন বসাক অভিযোগ করে বলেন, “যুবককে মাঝে মধ্যেই ময়নাতলি এলাকায় ঘোরাফেরা করতে দেখা গেছে। কিন্তু ওই যুবক কি কারনে ঘুরে বেড়াচ্ছে তা আগে বোঝা যায়নি। তবে অপহরনের চেষ্টার ঘটনা সামনে আসতেই যুবককের উদ্দেশ্য স্পষ্ট হয়।” এদিকে অভিযুক্ত যুবক মানবের বাড়ি ময়নাগুড়ি ব্লকের ভাঙ্গারহাট এলাকার। জানা গেছে, মেয়েটির উদ্দেশ্যে প্রায়ই ধুপগুড়ীতে আত্মীয়ের বাড়িতে এসে থাকতো। ধুপগুড়ী থানার আইসি শ্রী সঞ্জয় দত্ত বলেন, “অভিযোগ পেয়েছি। পুলিশ ঘটনার তদন্ত করে দেখছে।”

Facebook Comments
Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!