উত্তরবঙ্গের বাংলা সাহিত্যে প্রথম ওয়েব পদক্ষেপ ‘লহরী’ শুরু হল এর যাত্রা

হীরক. ডি (টি.এন.আই শিলিগুড়ি) | টি.এন.আই সম্পাদনা শিলিগুড়ি

বাংলাডেস্ক, টি.এন.আই শিলিগুড়ি, ২১শে মার্চ ২০১৮: এই প্রথম প্রকাসিত হল বাংলা সাহিত্য জগতের উত্তরবঙ্গ থেকে প্রথম কোন সাহিত্য পোর্টাল (ওয়েবসাইট) www.lohori.com। গত সপ্তাহে এমনি এক সান্ধ্য অনুষ্ঠানে এই ঘোষণা করলেন এই উদ্যোগের কারিগর শ্রীমতী রিয়া বাড়ই। তবে মনে করবেন না যে রিয়া দেবী কোন প্রবীণ বেক্তি। নিতান্তই সাধারন এবং অতি নবীন এবং বর্তমানে উত্তরবঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয়ে স্নাতকোত্তরে পাঠরতা রিয়া বরাবরি সৃজনশীল কলা জগতের সঙ্গে যুক্ত। তিনি নিজেও একজন বাচিক শিল্পী তার পাশাপাশি একজন লেখিকা। এই সাহিত্য পোর্টাল শিলিগুড়ির একটি সৃজনশীল থিম রেস্তেরায় (মৌতাত) উন্মোচন হয়। এই পোর্টালের নাম রাখা হয়েছে ‘লহরী’। রিয়া দেবির মতে এই পোর্টাল শুরু করার আগে অনেক আলোচনার, রিসার্চ করেই এই পোর্টাল তৈরি করবার সিদ্ধান্তে আসা হয়। বেশ কিছু বিশেষজ্ঞদের মতে সাহিত্য প্রকাশনায় এই পদক্ষেপ এক নতুন অধ্যায় শুরু হল। তুলনামূলক ভাবে দক্ষিণবঙ্গের থেকে সাহিত্য প্রকাশনায় অনেক পিছিয়ে উত্তরবঙ্গ। এবং এই উত্তরবঙ্গ থেকে এই উত্তরবঙ্গের এই পোর্টাল উন্মোচন হওয়াতে এই পদক্ষেপের গুরুত্ব এক অন্য মাত্রা পেল বলে মনে করছে সাহিত্য মহল। এর উদ্যোক্তা রিয়া দেবী টি.এন.আই কে বলেন “অনেক দিন ধরে ভাবনায় ছিল সাহিত্যে কিছু নতুন সৃজনশীল কাজের করবার। এর কারন হিসেবে বলতে পারি, যেভাবে নেট দুনিয়া নতুন প্রজন্মকে প্রভাবিত করেছে, সেখানে দাড়িয়ে দেখা যাচ্ছে বই বা সাহিত্য পত্রিকা প্রকাশনা বা বিক্রি আগের তুলনায় অনেকটাই কম। নতুন প্রজন্মকে সাহিত্যের কাছে নিয়ে আশার জন্যে দরকার ছিল নতুন পদ্ধতি। তাই এই প্রচেষ্টা। প্রচেষ্টার নাম ‘লহরী’”। তিনি আরও বলেন “যদিও লহরী সাহিত্য পোর্টাল হিসেবেই আত্ম প্রকাশ করছে তবুও বলছি এতে থাকছে আরও অনেক বিষয় যেমন, ছবি, গান, মিউজিক ভিডিও, ভ্রমণ কাহিনি, সমালোচনা, ইত্যাদি। অর্থাৎ কি না বলা যায় শুধু মাত্র সাহিত্যেই সীমিত থাকছেনা লহরী, রয়েছে সৃজনশীলতার এক বড় প্রেক্ষাপট”।  তবে ‘লহরী’ যে শুধু মাত্র উত্তরবঙ্গে সীমিত থাকছে বা রয়েছে তা নয়। কলকাতা, দক্ষিণবঙ্গ এবং বাংলাদেশের বেশ কিছু লেখক লেখিরাও যুক্ত হয়েছেন এই প্রচেষ্টায়। তার মধ্যে রয়েছেন শ্রী সান্তনু মুখার্জি, বাংলাদেশ থেকে মস্তাফিজুর রহমান প্রমুখ। রিয়া দেবী নিজেই এই পোর্টালের মূল সম্পাদিকা হিসেবে রয়েছে।

তার সাথে সঙ্গে রয়েছে শ্রী অভিজিৎ দাস সহ-সম্পাদক হিসেবে। পোর্টালের সম্পূর্ণ কারিগরি বিভাগটা তদারকি করছে অভিজিৎ এবং তার টিম। এছারাও সম্পাদনায় আছে নবীন শিলিগুরির লেখক ভাস্কর চক্রবর্তী। তাছারাও সম্পাদক মণ্ডলীতে আছেন অনেক গুনি বেক্তি। সহ-সম্পাদক শ্রী অভিজিৎ দাস টি.এন.আই কে বলেন “আমি মূলত রাজি হই এই প্রজেক্টের ভবিষ্যতের পরিসর ভেবে। আমি দেখেছি যে এই প্রজেক্ট শুধু উত্তরবঙ্গ কেন, সারা দেশ বা বিশ্বকে বাংলা সাহিত্য প্রকাশনা দিয়ে এক ছাতার তলায় নিয়ে আসতে সক্ষম হবে”। লহরীর উন্মোচন রজনিতে এই অনুষ্ঠানে হাজির হয়েছিল শিলিগুড়ির বহু নবীন ও প্রতিষ্ঠিত লেখক, লেখিকা, বাচিক শিল্পী, আবৃতিকার এবং বিভিন্ন পেশার থেকে বহু প্রতিষ্ঠিত বেক্তি। ছিলেন সাহিত্যিক সুপ্তি সেন, নাট্যকার কৌশিক সেন, এস.আই.টির অধ্যাপক সোমনাথ দত্ত, আবৃতিকার সুভ্রা জোয়ারদার, ‘মৌতাত’ এর কর্ণধার শ্রীমতী অনাদ্রিতা দেব দত্ত, শিক্ষিকা দোলা রায় সোম, শিক্ষক অলক কর্মকার, অভ্যন্তর ডিজাইনার রুনা শর্মা দত্ত ও পালি সরকার ঘোষ, গায়ক সৌভিক, প্রতিক সাহা, বর্ণালি বনিক প্রমুখ। উন্মোচন অনুষ্ঠানে ছিল লেখক লেখিকাদের পরিচয় পর্ব, তাদের কবিতা এবং গল্প পাঠ, গান ইত্যাদি। এবং সাথে সাথে উন্মোচিত হয় ‘লহরী’। ইতিমধ্যেই এই নতুন প্রচেষ্টার জন্যে টিম ‘লহরী’ র জন্যে অনেক মহল থেকে শুভেচ্ছা বার্তা আসতে শুরু করেছে বিভিন্ন মহল থেকে।

ছবিঃ লহরী

Facebook Comments
Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!